সংরক্ষণাগার

নির্বাচিত সংবাদরাজনীতি

প্রধানমন্ত্রী ছাড়া আওয়ামী লীগের সবাই দুর্নীতিতে জড়িত: রাঙ্গা

রংপুরের পল্লী নিবাসে এরশাদের মৃত্যুবার্ষিকীর অনুষ্ঠানে বক্তব্য দিচ্ছেন রাঙ্গা, ছবি: জাগো নিউজ

জাতীয় পার্টির প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের মৃত্যুবার্ষিকীর দিনে বগুড়া-১ ও যশোর-৬ আসনের উপনির্বাচনের ভোটের আয়োজন দুঃখজনক বলে উল্লেখ করেছেন জাতীয় পার্টির মহাসচিব মসিউর রহমান রাঙ্গা।

তিনি বলেন, নির্বাচন কমিশন সরকারের তাবেদার হয়ে গেছে। তারা ভোট চুরির নির্বাচন উপহার দিতে এমনটা করেছে। এভাবে চলতে থাকলে জনগণ একদিন ঠিকই নির্বাচন কমিশনের গলা চেপে ধরবে। মঙ্গলবার (১৪ জুলাই) দুপুরে রংপুরের পল্লী নিবাসে জাতীয় পার্টির প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের মৃত্যুবার্ষিকীর অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন তিনি।

বিরোধীদলীয় চিফ হুইপ রাঙ্গা বলেন, প্রধানমন্ত্রী ছাড়া আওয়ামী লীগের সবাই দুর্নীতির সঙ্গে জড়িত। এখন দল হিসেবে আওয়ামী লীগ একটি দুর্নীতিগ্রস্ত দল। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা চেষ্টা করলেও দুর্নীতিবাজদের কারণে সরকারের অনেক প্রচেষ্টা সফল হচ্ছে না। শুধু স্বাস্থ্যখাত নয়; সব খাত দুর্নীতিবাজদের দখলে। তাদের আধিপত্য সরকারের সব উন্নয়নমূলক কর্মকাণ্ডের অন্তরায় হয়ে দাঁড়িয়েছে।

জাপা মহাসচিব বলেন, করোনা পরবর্তীতে দেশের মানুষের জন্য খারাপ পরিস্থিতি অপেক্ষা করছে। সেই পরিস্থিতি মোকাবিলায় পরিকল্পনা জরুরি হলেও কোনো পরিকল্পনা নেই সরকারের। আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে উত্তরাঞ্চলের হারানো জাতীয় পার্টির ২১টি আসন ফিরে আনার চ্যালেঞ্জ ছুড়ে দিয়ে রাঙ্গা বলেন, আগামীতে বৃহত্তর রংপুর-রাজশাহীর ২১টি আসন আমাদের দখলে থাকবে। এটা আমার রাজনীতির চ্যালেঞ্জ। যদি না পারি; তবে রাজনীতি ছেড়ে দেব। একই অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে স্বাস্থ্যখাতে লুটপাটের সঙ্গে জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান দলের চেয়ারম্যান ও সংসদ উপনেতা জিএম কাদের।

তিনি বলেন, যারা একসময় এরশাদের স্বাস্থ্যনীতির বিরোধিতা করেছেন, এখন তারাই গুণগান করছেন। আমরা সংসদে স্বাস্থ্যখাত, শিক্ষাখাতসহ সরকারের বিভিন্ন খাতের দুর্নীতি ও অনিয়ম নিয়ে কথা বলে আসছি। বিচার দাবি করেছি। এরই প্রেক্ষিতে জড়িতদের বিরুদ্ধে তৎপর হয়েছে সরকার। এজন্য সরকারপ্রধানকে ধন্যবাদ। তবে অপরাধীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির ব্যবস্থা করতে হবে। যাতে আগামীতে আর কেউ এমন অনিয়ম-দুর্নীতি করার সাহস না পায়।

আলোচনা সভায় রংপুর সিটি করপোরেশনের মেয়র ও জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য মোস্তাফিজার রহমানের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন গাইবান্ধা-১ আসন থেকে নির্বাচিত জাতীয় পার্টির সংসদ সদস্য ও দলের অতিরিক্ত মহাসচিব শামীম হায়দার পাটোয়ারী, যুগ্ম মহাসচিব এসএম ইয়াসির ও কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক হাজি আব্দুর রাজ্জাক।

এর আগে দলের নেতাকর্মীদের সঙ্গে নিয়ে এরশাদের কবরে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন জাপা চেয়ারম্যান জিএম কাদের। এ সময় দলের প্রয়াত চেয়ারম্যানের আত্মার মাগফিরাত কামনা করে মোনাজাত করা হয়।

মন্তব্য করুন