Archives

খেলাধুলা

সাকিব খুব এক্সসাইটেড!

আইপিএলে কলকাতা নাইটরাইডার্সের সঙ্গে সাকিব আল হাসানের সখ্য বেশ পুরানো। সবমিলিয়ে কেকেআরের হয়ে সাকিব ২০১১ থেকে ২০১৭ সাল এই সময়ের মধ্যে ছয় মৌসুম খেলেছেন। মাঝের ২০১৩ সালে তিনি আইপিএলে খেলেননি। যে দু’বার আইপিএলে কলকাতা চ্যাম্পিয়ন হয়েছে, সেই দু’বারই সাকিব ছিলেন দলে।

 

নিউজ ডেস্ক: আইপিএলে কলকাতা নাইটরাইডার্সের সঙ্গে সাকিব আল হাসানের সখ্য বেশ পুরানো। সবমিলিয়ে কেকেআরের হয়ে সাকিব ২০১১ থেকে ২০১৭ সাল এই সময়ের মধ্যে ছয় মৌসুম খেলেছেন। মাঝের ২০১৩ সালে তিনি আইপিএলে খেলেননি। যে দু’বার আইপিএলে কলকাতা চ্যাম্পিয়ন হয়েছে, সেই দু’বারই সাকিব ছিলেন দলে। একসময় তো বলাই হতো বিদেশি খেলোয়াড় হিসেবে সাকিব আল হাসান কলকাতার ‘ঘরের ছেলে’!

মাঝে ২০১৮ এবং ২০১৯ এই দুই মৌসুম সালে সাকিব সানরাইজার্স হায়দরাবাদের হয়ে খেলেছিলেন। কিন্তু একাদশে নিয়মিত জায়গাও পেতেন না সানরাইজার্সে। আর আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে নিষিদ্ধ থাকায় সাকিব গেল বছরের আইপিএলে খেলতে পারেননি। এবার নতুন মৌসুমে আবার সাকিব ফিরেছেন কলকাতায়। নিজের পুরানো ফ্র্যাঞ্চাইজিতে ফিরে সাকিবও বেশ আনন্দিত। ১৮ ফেব্রুয়ারি, বৃহস্পতির সন্ধ্যায় সাকিব ফেসবুকে এক বার্তায় সেই আনন্দের প্রকাশ করেন। কেকেআর তাদের অফিসিয়াল সাইটে সেই ভিডিও বার্তা প্রকাশ করে।

এই ফেসবুক বার্তায় সাকিব বলছেন- ’হ্যালে এভরিওয়ান, আশা করি সবাই ভাল আছেন। খুবই এক্সসাইটেড এবছর কেকেআরের হয়ে খেলতে পারবো এজন্য। ২০১২ এবং ২০১৪ তে যেমন ফলাফল করেছিলাম, এবারো তেমনই করতে চাইবো। ঐ দুই বছরে আমরা আইপিএলের চ্যাম্পিয়নশিপ জিতেছি। ঠিক ঐ রেজাল্টই করতে চাইবে কেকেআরের হয়ে। কলকাতার হয়ে আইপিএলে আমি আরেকবার খেলতে পারবো-এজন্য খুব খুউবই এক্সসাইটেড আমি।’

১৮ ফেব্রুয়ারি দুপুরে আইপিএলের নিলামে সাকিবের ভিত্তিমূল্য ছিল ২ কোটি রুপি। বাংলাদেশি এই অলরাউন্ডারকে দলে পেতে কলকাতা এবং পাঞ্জাব কিংস চেষ্টা চালায়। নিলামে সেই লড়াইয়ে কলকাতা ৩ কোটি ২০ লাখ রুপিতে সাকিবকে দলে টেনে নেয়।

সাকিব আইপিএলে ৯ মৌসুমে সবমিলিয়ে খেলেছেন ৬৩ টি ম্যাচ। রান করেছেন ৭৪৬। হাফসেঞ্চুরি আছে দুটি। সর্বোচ্চ রান ৬৩। রান গড় ২১.৩১। উইকেট শিকার করেছেন ৫৯টি।

সূত্র: বার্তা২৪.কম

এসএসআর/জামালপুর

বার্তা সম্পাদক
%d bloggers like this: